বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪
২ শ্রাবণ ১৪৩১
আবারও বইমেলা ছাড়লেন মুশতাক-তিশা
প্রকাশ: সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ৫:০৮ পিএম |

আবারও বইমেলা ছাড়লেন মুশতাক-তিশাগত শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) অমর একুশে বইমেলায় গিয়ে অপ্রীতিকর ঘটনার সাক্ষী হওয়ার পরে আজ রোববার আবারও বইমেলায় গিয়েছিলেন সামাজিক মাধ্যমে আলোচিত দম্পতি খন্দকার মুশতাক ও সিনথিয়া ইসলাম তিশা।
তবে রোববারই একই ঘটনার সাক্ষী হতে হয়েছে তিশা-মুশতাককে। দর্শনার্থীদের ‘ভুয়া ভুয়া’ স্লোগান ও নানা আপত্তিকর মন্তব্য বইমেলা অঙ্গন থেকে বের হয়ে যেতে হয়েছে তাদের। 
রোববার বিকেলে ৩টায় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট গেট দিয়ে বইমেলায় প্রবেশ করেন এই দম্পতি। সেখানে গিয়ে কিছুক্ষন অবস্থান করার পরেই একদল মানুষ ‘ভুয়া ভুয়া’ স্লোগান দিতে শুরু করেন। এরপর নিরাপত্তাকর্মীদের সহায়তা নিয়ে মেলা থেকে বের হয়ে আসেন খন্দকার মুশতাক ও তিশা। 
এসময় সাংবাদিকদের উদ্দেশে খন্দকার মুশতাক বলেন, ‘বইমেলা একটি পবিত্র জায়গা। এখানে একজন লেখক-পাঠক হিসেবে আমার আসার অধিকার রয়েছে। যারা এসব করেছে, তারা পাঠক না। তারা মেলায় এসেছে এমন কাণ্ড ঘটানোর জন্য। আমি সাইবার ক্রাইমে অভিযোগ দিয়েছি।’

এসময় তিশা বলেন, ‘সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একজন মানুষ বলছে, আমাদেরকে মেরে ফেলতে চায়। আমি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে বলবো, আমার নিরাপত্তা কোথায়? একজন সাধারণ নাগরিক হিসেবে আমি আমার নিরাপত্তা চাই।’












সর্বশেষ সংবাদ
৫ তলার ছাদ থেকে ছাত্রলীগ কর্মীদের ফেলে দেয় আন্দোলনকারীরা
প্রাণহানির প্রতিটি ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত হবে : প্রধানমন্ত্রী
বৃহস্পতিবার সারা দেশে ‘কমপ্লিট শাটডাউন’ কর্মসূচি ঘোষণা
কুবি'র শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ প্রত্যাখান
আজ পবিত্র আশুরা
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
সব স্কুল–কলেজ অনির্দিষ্টকাল বন্ধ
নিজের লাশ কী করতে হবে, আগেই জানিয়েছিলেন আবু সাঈদ!
এইচএসসির বৃহস্পতিবারের পরীক্ষা স্থগিত
কুমিল্লায় জোড়া খুনের মামলায় ছয়জনের মৃত্যুদণ্ড
এইচএসসির বৃহস্পতিবারের পরীক্ষা স্থগিত
Follow Us
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩, +৮৮ ০১৭১১ ৯৯৭৯৬৯, +৮৮ ০১৯৭৯ ১৫২৪৪৩, ই মেইল: [email protected]
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত, কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০২২ | Developed By: i2soft