.
 
Publish Date: 30 Nov -0001 00:00:00

নাঙ্গলকোটে বাংলা নববর্ষে বন্ধু মেলা
Share
পুরাতন বর্ষকে বিদায় দিয়ে নববর্ষকে সাদর সম্ভাষন জানিয়ে পহেলা বৈশাখ ১৪১৯ বঙ্গাব্দ নাঙ্গলকোট উপজেলা অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠানটি আয়োজনে ছিলেন নাঙ্গলকোট এ,আর উচ্চ বিদ্যালয়ের ১৯৮১ সালের এস,এস,সি ব্যাচ। উপজেলা অডিটরিয়ামে সকাল ১০ ঘটিকা থেকে সন্ধ্যা ৬ ঘটিকা পর্য বিরতীহীনভাবে চলতে থাকে উক্ত অনুষ্ঠান। দীর্ঘ ৩১ বছর পর পুরাতন বন্ধুরা একত্রিত হতে পেরে বন্ধুদের মাঝে এক আবেগঘন পরিবেশের সৃষ্টি হয়। কর্মব্যস্ততার কারণে কখনো সকল বন্ধু একত্র হতে পরেন নাই। তাই নাঙ্গলকোটের স্থানীয় বন্ধুদের প্রচেষ্টায় এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানের সার্বিক সহযোগীতায় ছিলেন অধ্যক্ষ রুহুল আমিন ভূঁইয়া, মাষ্টার মফিজুর রহমান, পৌর কাউন্সিলর ইলিয়াছ ভূঁইয়া প্রমূখ। অনুষ্ঠানে সকল বন্ধু তাদের স্ত্রী ও সানগণ সহ উপস্থিত ছিলেন। উপস্থিত সকল বন্ধুদেরকে রজনীগন্ধা ও গোলাপ দিয়ে বরণ করার মাধ্যমে অনুষ্ঠানের কার্যক্রম শুরু হয়। অনুষ্ঠানে সকল বন্ধু অতীতের স্মৃতিচারন মূলক বক্তব্য রাখেন। অধ্যাপক ওয়ালী উল্লাহ সবার মাঝে সার্ট ও প্রত্যেকের স্ত্রীকে শাড়ী উপহার দেন। নাঙ্গলকোট এ,আর উচ্চ বিদ্যালয়ের তৎকালীন প্রধান শিক্ষক জনাব আবুল গফুর স্যারকে গুনীজন সংবর্ধনা দেওয়া হয়। সবাই তার বিক্ষ্যাত একটি অতিত উক্তির কথা স্মরণ করে, কত রবি জ্বলেরে....... কত আঁখি মেলেরে....। তিনি বহুদিন পর তার প্রিয় শিক্ষার্থীদের একসাথে পেয়ে আনন্দে আপ্লুত হয়ে পড়েন। তাকে সম্মানীত করার জন্য তিনি সবাইকে দোয়া করেন। এ ধরনের ব্যতিক্রমধর্মী একটি অনুষ্ঠান নাঙ্গলকোটে এই প্রথম উৎযাপন করা হয়। বন্ধুদের মাঝে বিশিষ্টজনদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, দুই দুই বারের নির্বাচিত সাবেক নাঙ্গলকোট ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ও প্রথম নির্বাচিত পৌর মেয়র জনাব সামছুদ্দিন কালু, সাংবাদিক ও মানবাধিকার সাহায্য সংস্থা (মাসাস) উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান এ,এইচ,এম আবুল খায়ের,অধ্যক্ষ হারুনুর রশিদ, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী শহিদ উল্লাহ শহিদ, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও রাজনীতিবীদ জামাল উদ্দিন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও রাজনীতিবীদ মফিজুর রহমান, ইঞ্জিনিয়ার আবু বকর ছিদ্দিক। অনুষ্ঠান শেষে এক মনোজ্ঞ বাঙ্গালী সংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।
 
The Sire Design Mantain & Developed by RiverSoftBD