ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
1081
ভোটারহীন শান্তিপূর্ণ নির্বাচন কুমিল্লায়
চেয়ারম্যানসহ ১০ ইউপির সদস্য পদে উপনির্বাচন সম্পন্ন
Published : Wednesday, 21 October, 2020 at 12:00 AM, Update: 21.10.2020 1:03:13 AM
ভোটারহীন শান্তিপূর্ণ নির্বাচন কুমিল্লায়
নিজস্ব প্রতিবেদক: বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনা বাদে শান্তিপূর্ণ পরিবেশেই গতকাল মঙ্গলবার কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদ নির্বাচন এবং বরুড়ার আদ্রা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে উপনির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। এছাড়াও এদিন জেলার কয়েকটি উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন পরিষদের বিভিন্ন ওয়ার্ডে সংরক্ষিত সদস্য ও সদস্য পদে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। তবে নির্বাচনকে ঘিরে ভোটারদের মাঝে কোনো আগ্রহ লক্ষ্য করা যায়নি। প্রায় প্রতিটি কেন্দ্রই ছিলো ফাঁকা। যারা ভোট দিতে এসেছিলেন, শান্তিপূর্ণ পরিবেশেই তারা ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন।
তবে নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করেছেন দাউদকান্দি ও আদ্রার বিএনপি মনোনীত দুই প্রার্থী। ভোট চলাকালে বেলা ১২টার দিকে দাউদকান্দি উপজেলায় বিএনপির প্রার্থী সাইফুল আলম ভূঁইয়া ‘কারচুপি’র অভিযোগ এনে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দেন। এর কিছুক্ষণ পর একই ঘোষণা দেন বরুড়ার আদ্রা ইউনিয়নের বিএনপির চেয়ারম্যান প্রার্থী পারভেজ হোসেন। এ দুই প্রার্থীই পুনর্নির্বাচনের দাবি জানান।
এছাড়া বরুড়ার আদ্রা ইউনিয়নের উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ও দলের বিদ্রোহী (স্বতন্ত্র) প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে স্বতন্ত্র প্রার্থী মাহফুজুর রহমান সেলিমের ১০ কর্মী আহত হয়েছে বলে দাবি করা হয়। এদিকে পেরপেটি কেন্দ্রে আনারস প্রতীকের প্রার্থীর গাড়ি ভাংচুর করা হয়। হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনায় কেন্দ্র ভোটারশূন্য হয়ে পড়ে।
অন্যদিকে দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মালিগাঁও ও বাজারখোলা কেন্দ্রে দুই ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীর কর্মীদের কেন্দ্র দখল করে ব্যালট পেপারে সিল মারা ও ব্যালট ছিনতাইসহ নানা অভিযোগে এ ২টি কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ স্থগিত করা হয়।
এছাড়াও গতকাল বরুড়া উপজেলার আড্ডা ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডে সংরক্ষিত (নারী) সদস্য, একই উপজেলার পয়ালগাছা ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডে সদস্য, মুরাদনগর উপজেলার কামাল্লা ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড, চৌদ্দগ্রাম উপজেলায় কাশিনগর ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ড, একই উপজেলার গুণবতী ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড, দেবিদ্বারের বরকামতা ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ড, ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার দুলালপুর ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড, নাঙ্গলকোট উপজেলার জোড্ডা ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ড এবং চান্দিনা উপজেলার দোল্লাই নবাবপুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডে সদস্য উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।
দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদের মেয়াদপূর্তিতে সেখানে নতুন নির্বাচন আর অন্যগুলোতে জনপ্রতিনিধিদের মৃত্যুও কারণে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।
দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের বিভিন্ন কেন্দ্রে ঘুওে ভোটার এজেন্ট ও প্রিসাইডিং কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। তবে উপজেলার ১০২টি কেন্দ্রের মধ্যে বেশিরভাগ কেন্দ্রেই ভোটার উপস্থিতি ছিল একেবারেই কম।
সিনিয়র জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং অফিসার মো. জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, ব্যালট পেপার ছিনতাই ও জোর করে সিল মারার অভিযোগে দাউদকান্দি উপজেলার মালিগাঁও ও বাজারখোলা কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ স্থগিত করা হয়েছে। তবে বিএনপি প্রার্থীদের ভোট বর্জনের বিষয়ে তিনি মন্তব্য করবেন না বলে জানান।

বরুড়ায় সংঘর্ষ:
গতকাল সকালে বরুড়ার আদ্রা ইউনিয়নের উপ-নির্বাচনে কাকৈইতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ শুরু হওয়ার আগে আওয়ামী লীগের (নৌকা) প্রার্থী আব্দুল করিম ও দলের বিদ্রোহী (স্বতন্ত্র) আনারস প্রতীকের প্রার্থী সেলিমের সমর্থকদের মধ্যে দেশীয় অস্ত্র ও লাঠি নিয়ে সংঘর্ষ হয়। এতে স্বতন্ত্র প্রার্থী মাহফুজুর রহমান সেলিমের ১০ কর্মী আহত হয়েছে বলে দাবি করা হয়। এদিকে পেরপেটি কেন্দ্রে আনারস প্রতীকের প্রার্থীর গাড়ি ভাংচুর করা হয়।
বিএনপির প্রার্থী মো. পারভেজ হোসেন অভিযোগ করে বলেন, ‘নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর কর্মীরা ইউনিয়নের  ৯টি কেন্দ্রের মধ্যে নলুয়া, পেরপেটি, আদ্রা, নরীন্দ্রপুরসহ ৬টি কেন্দ্র দখল করে নেয়। কেন্দ্র থেকে আমার এজেন্টদের বের করে দেয়া হয়েছে। নৌকার প্রার্থীর কর্মীরা হুমকি দিয়ে বলেছে, বাঁচতে চাইলে তোরা কেন্দ্র থেকে বের হয়ে যা। তারা বহিরাগত লোক দিয়ে আমার কর্মী মনিরকে গুরুতর আহত করেছে; সে হাসপাতালে ভর্তি আছে। এখানে সুষ্ঠু নির্বাচন হয়নি। প্রশাসনকে বারবার অনুরোধ করা হলেও তারা নীরব ভূমিকায় ছিল। তাই আমি ভোট বর্জন করে পুনরায় এখানে নির্বাচনের দাবি জানাচ্ছি।’
তবে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আ. করিম বলেন, ‘সব কেন্দ্রে সুষ্ঠু ভোট হয়েছে। কোথাও কোনো সমস্যা হয়নি।’
কাকৈরতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিজাইজিং অফিসার জাহাঙ্গীর হোসেন জানান, ‘কেন্দ্রের সীমানার মধ্যে কোনো ঝামেলা হয়নি। নৌকা ছাড়া অন্য প্রতীকের এজেন্টরা কেন্দ্রে আসেননি।’
এ কেন্দ্রের পুলিশ কর্মকর্তা এসআই নাছের বলেন, ‘ভোট শুরুর আগে বাইরে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার খবর শুনেছি। তবে কেন্দ্রের ভেতরে কোনো সমস্যা হয়নি।’
বরুড়া উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আজহারুল ইসলাম বলেন, ‘নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। আমার কাছে কোনো অভিযোগ আসেনি।’
বরুড়া থানার ওসি সত্যজিৎ বড়ুয়া জানান, আদ্রা ইউনিয়নের উপ-নির্বাচনে কয়েকটি কেন্দ্রের বাইরে হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। তবে এ ব্যাপারে কেউ অভিযোগ দেয়নি।





© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ই মেইল: [email protected], [email protected],  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন
কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : [email protected] Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};