ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
979
করোনা আক্রান্ত রোগী সাত হাজার ছাড়ালো কুমিল্লায়   
একদিনে আরও ৩২ রোগী শনাক্ত, মৃত্যু ১
ফারুক আল শারাহ:
Published : Tuesday, 8 September, 2020 at 12:00 AM, Update: 08.09.2020 12:49:20 AM
করোনা আক্রান্ত রোগী সাত হাজার ছাড়ালো কুমিল্লায়    করোনাভাইরাসের হটস্পট কুমিল্লায় আক্রান্তের সংখ্যা সাত হাজার ছাড়িয়েছে। এ নিয়ে এখানে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৭,০০৮ জন। এখানে করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন ১৮৭ জন। উপসর্গ নিয়ে মারা গিয়েছেন পাঁচ শতাধিক মানুষ। আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ৫,৫২২ জন। জেলায় একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩২ জন। এসময় মৃত্যুবরণ করেছেন ১ জন।
সূত্রে জানা যায়, বাংলাদেশে চলতি বছরের ৮ মার্চ করোনার প্রকোপ শুরু হলেও একমাস পর ৯ এপ্রিল জেলায় প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। এরপর থেকে লাফিয়ে লাফিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে থাকায় একপর্যায়ে করোনার ‘হটস্পট’ হয়ে ওঠে কুমিল্লা। জেলায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে সরকারি ও স্থানীয়ভাবে বিভিন্ন কার্যকর পদক্ষেপ নেয়া হয়। এরই প্রেক্ষিতে গত কয়েকদিন থেকে নতুন আক্রান্তের সংখ্যা কিছুটা কমতে থাকে। তবে মৃত্যুর হার কমানো যাচ্ছে না। প্রায় প্রতিদিনই জেলায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে ১/২ জন এমনকি ৩ জন করেও মারা যাচ্ছে। গত কয়েকদিন থেকে মৃত্যুর হার বেড়েই চলেছে। এতে উদ্বেগ-উৎকন্ঠা দেখা দিয়েছে।
জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে প্রাপ্ত তথ্যে জানা যায়, সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) কুমিল্লায় ১৭২টি নমুনার রিপোর্ট আসে। আগত রিপোর্টে ৩২ জনের পজিটিভ ও ১৪০টি নেগেটিভ। আক্রান্তদের মধ্যে সর্বোচ্চ সিটি করপোরেশন ৩০ জন, আদর্শ সদর ১ জন ও বুড়িচং উপজেলায় ১ জন।
জেলায় একদিনে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ১ জন মৃত্যুবরণ করেছেন। মৃত ৭০ বয়সী বৃদ্ধার বাড়ি নাঙ্গলকোট উপজেলায়।  
জেলায় একদিনে ৩৬ জন সুস্থ হয়েছেন। তাদের মধ্যে সিটি করপোরেশন ২১ জন, লাকসাম ১৩ জন ও চান্দিনা উপজেলায় ২ জন।
সূত্রে জানা যায়, সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) কুমিল্লা জেলায় নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ২৬৮টি। এ পর্যন্ত জেলায় সর্বমোট নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ৩৩,৩৮৪টি। তার মধ্যে রিপোর্ট এসেছে ৩২,৪৪৩টি। এখনো রিপোর্ট প্রক্রিয়াধীন ৯৪১টি। প্রাপ্ত রিপোর্টে পজিটিভ ৭,০০৮ জন এবং নেগেটিভ ২৫,৪৩৫টি। তাদের মধ্যে মৃত্যুবরণ করেছেন ১৮৭ জন। আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ৫,৫২২ জন। এখনো হোম আইসলোশান ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ১,২৯৯ জন।   
কুমিল্লা জেলা করোনা প্রতিরোধ সমন্বয়ক ডা. নিসর্গ মেরাজ চৌধুরী জানান, চিকিৎসক, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও প্রশাসনের দায়িত্বশীলদের আগে ফ্রন্টলাইন ফাইটার বলা হতো। আমি মনে করে, এখন প্রতিটি নাগরিকই ফ্রন্টলাইন ফাইটার। নিজের, পরিবারের ও অন্যের সুরক্ষা নিশ্চিতে সকলকে ভূমিকা রাখতে হবে। অবশ্যই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশনা মোতাবেক স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। আর তা মেনে চলতে পারলেই করোনা সংক্রমণ রোধের পাশাপাশি মৃত্যুর হারও দ্রুত কমে আসবে। 





সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন, কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ।
ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ই মেইল: [email protected], [email protected],  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ১২২ অধ্যক্ষ আবদুর রউফ ভবন
কুমিল্লা টাউন হল গেইটের বিপরিতে, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : [email protected] Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};