ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন অ্যাপস কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য লাইভ টিভি লাইভ রেডিও সকল পত্রিকা যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
128
সব রোহিঙ্গার জন্য বাড়ি নির্মাণ করবে বাংলাদেশ
Published : Friday, 6 October, 2017 at 12:55 AM
সব রোহিঙ্গার জন্য বাড়ি নির্মাণ করবে বাংলাদেশআন্তর্জাতিক ডেস্ক ||
রোহিঙ্গাদের জন্য বিশ্বের সবচেয়ে বড় শরণার্থী আশ্রয়কেন্দ্র নির্মাণের ঘোষণা দিয়েছে বাংলাদেশ। যেখানে আট লাখের বেশি রোহিঙ্গার জন্য বাড়ি থাকবে।

বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে রোহিঙ্গা পরিস্থিতি নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া এ কথা জানান।

২৫ আগস্ট রাখাইন রাজ্যে সেনাবাহিনী ও পুলিশের বেশ কিছু তল্লাশি চৌকিতে হামলার অযুহাতে রোহিঙ্গা নিধন শুরু করে মিয়ানমার সেনাবাহিনী। জীবন বাঁচাতে এখন পর্যন্ত পাঁচ লাখের বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী বলেন, ‘বর্ধিত ক্যাম্প এলাকা আলোকিত করতে নয় কিলোমিটার নতুন বিদ্যুৎ লাইন নির্মাণ করা হচ্ছে। ক্যাম্পে পরিবেশবান্ধব চুলা সরবরাহ করা হচ্ছে।’

ক্যাম্প এলাকায় সেনাবাহিনীর মাধ্যমে ১৮ কিলোমিটার ও এলজিইডি’র মাধ্যমে নয় কিলোমিটার নতুন রাস্তা নির্মাণের কাজ চলছে বলেও জানান তিনি। এছাড়া কক্সবাজার শহরের পাশে কুতুপালংয়ে সব রোহিঙ্গার জন্য বাড়ি নির্মাণের পরিকল্পনার কথাও জানিয়েছেন তিনি।

২৫ আগস্টের পর থেকে বাংলাদেশে আসা রোহিঙ্গাদের জন্য দুই হাজার একর জমিতে ক্যাম্প করে আশ্রয় দিয়েছে বাংলাদেশ। কিন্তু গত একমাসে আসা পাঁচ লাখ এবং আগের তিন লাখ রোহিঙ্গা মিলে আট লাখ শরণার্থী হয়ে যাওয়ার কারণে নতুনভাবে এক হাজার একর জমিতে আশ্রয়কেন্দ্র নির্মাণের পরিকল্পনা চলছে।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী বলেন, ‘সবাইকে নিয়ন্ত্রণের জন্য কুতুপালং ক্যাম্প ২০টি ব্লকে ভাগ করা হয়েছে। এক একটি ব্লকে ৩২ থেকে ৩৫ হাজার নিবন্ধিত রোহিঙ্গারা থাকবেন। ৩৫ হাজার মানুষকে নিয়ন্ত্রণ করা খুব একটা কষ্টকর হবে না।’

এই ৩৫ হাজার মানুষের জন্য আলাদা শেড, আলাদা মসজিদসহ অন্যান্য সব ব্যবস্থা করা হবে। নভেম্বরের এক তারিখ থেকে ওই জায়গায় উপ-শহর হয়ে যাবে বলেও দাবি করেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, ‘কেউ বুঝতে পারবেন না ঢাকায় এসেছেন নাকি রোহিঙ্গাদের আশ্রয়কেন্দ্র কুতুপালংয়ে এসেছেন। প্রধানমন্ত্রীর পরিকল্পনা এভাবেই বাস্তবায়িত হচ্ছে। তবে সবকিছুই হবে অস্থায়ী।’

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদফতর এক হাজার নয়শট স্যানিটারি টয়লেট ও এক হাজার পাঁচশ ২৮টি টিউবওয়েল স্থাপন করেছে। ১৪টি মোবাইল ওয়াটার ট্রিটমেন্ট প্লান্ট ও সাতটি ওয়াটার ট্রাকের মাধ্যমে খাবারের পানি সরবরাহ করা হচ্ছে বলেও জানান মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া।

বাংলাদেশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েচে, প্রতিদিন চার থেকে পাঁচ হাজার রোহিঙ্গা সীমান্ত পেরিয়ে আসছে। এছাড়া ১০ হাজার রোহিঙ্গা নো ম্যান্স ল্যান্ডে অপেক্ষা করছে।




সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৬
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
কার্যালয়: কাজী অহিদুজ্জামান ম্যানশন, তৃতীয় তলা, কান্দিরপাড়,কুমিল্লা-৩৫০০, বাংলাদেশ
ফোন: +৮৮০ ৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২৪৪৩, +৮৮০ ১৭১৮০৮৯৩০২
ই মেইল: hridoycomilla@yahoo.com, newscomillarkagoj@gmail.com,  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ কাজী অহিদুজ্জামান ম্যানশান।
তৃতীয় তলা, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : hridoycomilla@yahoo.com Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};