ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন অ্যাপস কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য লাইভ টিভি লাইভ রেডিও সকল পত্রিকা যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
49
সরকারকে কড়া নজর রাখতে হবে
Published : Saturday, 12 August, 2017 at 12:00 AM
সরকারকে কড়া নজর রাখতে হবেপ্রতিবছর হজে যেতে গিয়ে বিড়ম্বনায় পড়েন লোকজন। এটা রীতি হয়ে দাঁড়িয়েছে। অনেকে টাকা-পয়সা সময়মতো জমা দিয়েও ভিসা সময়মতো পান না। ফলে যথাসময়ে ফ্লাইট মেলে না। অনেকের যাত্রাই বাতিল হয়ে যায় শেষ পর্যন্ত। এবারও এ রীতির ব্যত্যয় ঘটছে না। অনিশ্চয়তার মধ্যে পড়েছে অনেকের হজযাত্রা।
ভিসা জটিলতার কারণে পর্যাপ্ত হজযাত্রী পাওয়া যাচ্ছে না বলে ফ্লাইট বাতিল হচ্ছে প্রতিদিন। আবার অনেকে ভিসা পেয়েও যেতে পারছেন না হজ এজেন্সিগুলোর কারণে। আগামী ২৬ আগস্ট হজ ফ্লাইট শেষ হবে। প্রতিদিন প্রায় দুই হাজার ২৫০ জন হজের জন্য যাচ্ছেন।
কিন্তু এজেন্সিগুলোর কারণে অবস্থা এমন হয়েছে যে দিনে পাঁচ হাজারজন করে পাঠালেও সময়মতো সবাইকে পাঠানো সম্ভব হবে না। শেষ পর্যন্ত প্রায় ২৭ হাজার হজযাত্রী অনিশ্চয়তায় পড়ে যেতে পারেন।
ধর্মমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন দ্রুত হজযাত্রীদের পাঠানোর জন্য, কিন্তু তাঁর নির্দেশ আমলে নিচ্ছে না অনেক এজেন্সি। তারা মুনাফার বিষয়টিকেই বড় করে দেখছে। তারা বলছে, অনেক টাকা খরচ করে এ ব্যবসায় নামতে হয়েছে। হজযাত্রীদের আগে পাঠালে তাদের পোষাবে না। তাই ভিসা পাওয়ার পরও অপেক্ষা করছে তারা। দেরিতে পাঠিয়ে কম সময় রাখতে পারলে বাড়িভাড়া বাবদ তাদের খরচ কম পড়বে। কী অদ্ভুত যুক্তি! ৩৭৭টি হজ এজেন্সির মাধ্যমে ৭৭ হাজারের বেশি লোক হজে যাবেন। তাঁদের মধ্যে ৫৬ হাজার ৫৫০ জন ভিসা নিয়েও যেতে পারছেন না। ৯৫টি এজেন্সি এখনো একটি লোককেও পাঠায়নি। তাদের মাধ্যমে ভিসা পেয়ে বসে আছেন ১৮ হাজারের বেশি হজযাত্রী।
অনেক হজযাত্রী এখনো ভিসাই পাননি। এজেন্সিগুলোকে তাঁরা সব টাকাই দিয়েছেন। অথচ এজেন্সিগুলো এখনো মুয়াল্লিম ও আবাসন ঠিক করতে পারেনি। ফলে তাদের ভিসা হয়নি। আগামী ১৭ তারিখের মধ্যে ভিসাপ্রক্রিয়া শেষ না হলে তাদের ফ্লাইট না-ও হতে পারে। চোখে অন্ধকার দেখছেন হজে গমনেচ্ছু এই ব্যক্তিরা। অনিশ্চয়তায় কাঁদছেন অনেকে।
অনেক হজ এজেন্সি যুক্তি দেখাচ্ছে, এবার মুয়াল্লিম ফি ও বাসাভাড়া প্রায় দ্বিগুণ হয়ে যাওয়ায় তারা সংকটে পড়েছে। কোনো না কোনো যুক্তি তারা প্রতিবারই দেখায়। অথচ হজযাত্রী পাঠানোর মূল দায়িত্ব তাদের। আসল কথা হলো, মুনাফায় ছাড় দিতে চায় না তারা। হজযাত্রীদের বিষয়ে তাদের নজর নেই, তাদের নজর মুনাফায়।
হজ এজেন্সিগুলো যদি দায়িত্ব ঠিকমতো পালন না করে, তাহলে সরকারকে বিকল্প কিছু ভাবতে হবে। সরকারের ব্যবস্থাপনায় প্রচুর লোক হজে যাচ্ছে। একসময় যাত্রী পাঠানোর পুরো কাজটিই করত সরকার। এজেন্সিগুলো যদি বিড়ম্বনা সৃষ্টির প্রবণতা জিইয়ে রাখে, তাহলে সরকারকে ভাবতে হবে তাদের মাধ্যমে হজযাত্রী পাঠাবে কি না। প্রয়োজনীয় সব কাজ তারা যথাসময়ে যথাযথভাবে করছে কি না সেদিকে কড়া নজর রাখা দরকার। হজযাত্রা নির্বিঘ্ন করার জন্য সরকারকে আরো কঠোর হতে হবে।




© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৬
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
কার্যালয়: কাজী অহিদুজ্জামান ম্যানশন, তৃতীয় তলা, কান্দিরপাড়,কুমিল্লা-৩৫০০, বাংলাদেশ
ফোন: +৮৮০ ৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২৪৪৩, +৮৮০ ১৭১৮০৮৯৩০২
ই মেইল: hridoycomilla@yahoo.com, newscomillarkagoj@gmail.com,  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ কাজী অহিদুজ্জামান ম্যানশান।
তৃতীয় তলা, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : hridoycomilla@yahoo.com Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};