ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন অ্যাপস কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স কুমিল্লার ইতিহাস ও ঐতিহ্য লাইভ টিভি লাইভ রেডিও সকল পত্রিকা যোগাযোগ কুমিল্লার কাগজ পরিবার
Count
53
চালবাজিতে বাড়ছে মোটা চালের দাম
Published : Friday, 21 April, 2017 at 12:00 AM
চাল নিয়ে প্রতারণা চলছে। মোটা চাল ছেঁটে চিকন ও পলিশ করে মিনিকেট নামে বেশি দামে বিক্রি করছেন ব্যবসায়ীরা। এতে দেশে মোটা চালের কৃত্রিম সংকট তৈরি হচ্ছে। সার্বিকভাবে এর প্রভাব পড়ছে চালের দামে। ফলে এক মাসে পাইকারি ও খুচরা বাজারে কেজিতে মোটা চালের দাম বেড়েছে ৩ থেকে ৪ টাকা। যা নিন্ম আয়ের মানুষের ওপর বোঝা হয়ে দাঁড়াচ্ছে। এদিকে চালের দাম বৃদ্ধির জন্য মিল মালিকদের দায়ী করছেন ব্যবসায়ীরা। বিশ্লেষকরা বলছেন, চাল নিয়ে এটি এক ধরনের চালবাজি।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, এক শ্রেণির চালকল মালিক মোটা চাল ছেঁটে সরু করে মিনিকেট চাল বলে বাজারে বিক্রি করে। দীর্ঘদিন থেকে চক্রটি এ প্রক্রিয়ায় বিপুল অংকের মুনাফা লুটে নিচ্ছে। বাজারে মিনিকেট চালের চাহিদা বেশি থাকায় কিছু চালকল মালিক কম দামে মোটা চাল সংগ্রহ করে মিনিকেট চাল বানিয়ে বেশি দামে বিক্রি করছে। বিশেষ করে মাঝারি সরু বিআর-২৮, বিআর-২৯ ও বিআর-৩৯ জাতের ধান ছেঁটে পলিশ করে মিনিকেট চাল বলে বাজারজাত করা হচ্ছে। ব্যবসায়ীরা আরও জানান, পাশাপাশি চালের ২৫ শতাংশ আমদানি শুল্ক প্রত্যাহার করতে এখনও আমদানিকারক ও ব্যবসায়ীদের সিন্ডিকেট কারসাজির মাধ্যমে সরকারকে চাপে রাখার জন্য সব ধরনের চালের কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করছে। যার কারণে দফায় দফায় বাড়ছে সব ধরনের চালের দাম। এদিকে সব ধরনের চালের দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় ইতিমধ্যে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠক করেছে। দাম বাড়ার কারণ খতিয়ে দেখতে চালের মিলমালিক, পাইকার, আমদানিকারক এবং সংশ্লিষ্ট অন্য ব্যবসায়ীদের সঙ্গে দ্রুত বৈঠক করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এছাড়া খাদ্য এবং কৃষি মন্ত্রণালয় থেকেও এ বিষয়ে খোঁজখবর নেয়া হচ্ছে বলে জানা গেছে।
সরকারি সংস্থা ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) দৈনিক বাজার দরের তালিকায় মোটা চালের মধ্যে স্বর্ণা ও চায়না ইরি চালের মূল্য দেয়া আছে কেজিপ্রতি ৪০ থেকে ৪২ টাকা, যা এক মাস আগে মূল্য ছিল ৩৭ থেকে ৪০ টাকা। মাসের ব্যবধানে এর দাম বেড়েছে ৬ দশমিক ৪৯ শতাংশ। আর এক বছর আগে এর মূল্য ছিল ৩২ থেকে ৩৪ টাকায়। সেেেত্র বছরের ব্যবধানে দাম বেড়েছে ২৪ দশমিক ২৪ শতাংশ। অর্থাৎ টিসিবির তথ্য বলছে, সাধারণ ও নিন্ম আয়ের মানুষের জন্য মোটা চালের দাম এক বছরে সবচেয়ে বেশি বেড়েছে।
চাল ব্যবসায়ীরা বলেন, বোরো মৌসুম সামনে রেখে মিলারদের তৎপরতা বেড়েছে। বোরো ধান সস্তায় কিনতে কৌশল আঁটছেন তারা। ধারণা করা হচ্ছে, সরকার নির্ধারিত মূল্য কার্যকর হলে মিলারদের অপতৎপরতা কিছুটা কমতে পারে। কারওয়ান বাজার, বাদামতলি পাইকারি চালের বাজার ঘুরে ও ব্যবসায়ীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, এক মাসে পাইকারি বাজারে চালের দাম অনেকটা বেড়েছে। পাইকারি বাজারে মোটা চাল বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ৪০ টাকা, যা এক মাস আগে বিক্রি হয়েছে ৩৩ থেকে ৩৪ টাকায়। পারিজাত চাল ৪১ টাকা। এক মাস আগে এর দাম ছিল ৩৭ থেকে ৩৮ টাকা। বি আর-২৮ বিক্রি হচ্ছে ৪৪ টাকা। এক মাস আগে বিক্রি হয়েছে ৪২ থেকে ৪৩ টাকায়। নাজিরশাইল ৪৮ টাকা, মাসখানেক আগে দাম ছিল ৪৩ টাকা। মিনিকেট বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকায়। এই চালই খুচরা বাজারে এসে কেজি প্রতি ৩ থেকে ৪ টাকা বেড়ে যায়। খুচরা বাজারে মঙ্গলবার মোটা চাল মানভেদে বিক্রি হয়েছে ৪২ থেকে ৪৪ টাকায়। এছাড়া পারিজাত প্রতিকেজি ৪২ থেকে ৪৪ টাকা, বি আর-২৮ ৪৬ থেকে ৪৭ টাকা, ভালো মানের নাজিরশাইল বিক্রি হচ্ছে ৫২ থেকে ৫৬ টাকা এবং মিনিকেট চাল বিক্রি হচ্ছে মানভেদে ৫৩ থেকে ৫৬ টাকায়।




সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
কুমিল্লার কাগজ ২০০৪ - ২০১৬
সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আবুল কাশেম হৃদয় (আবুল কাশেম হৃদয়)
নির্বাহী সম্পাদক: হুমায়ূন কবীর জীবন
কার্যালয়: কাজী অহিদুজ্জামান ম্যানশন, তৃতীয় তলা, কান্দিরপাড়,কুমিল্লা-৩৫০০, বাংলাদেশ
ফোন: +৮৮০ ৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২৪৪৩, +৮৮০ ১৭১৮০৮৯৩০২
ই মেইল: hridoycomilla@yahoo.com, newscomillarkagoj@gmail.com,  Developed by i2soft
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ আবুল কাশেম হৃদয়
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ কাজী অহিদুজ্জামান ম্যানশান।
তৃতীয় তলা, কান্দিরপাড়, কুমিল্লা ৩৫০০। বাংলাদেশ। ফোন +৮৮ ০৮১ ৬৭১১৯, +৮৮০ ১৭১১ ১৫২ ৪৪৩
ইমেইল : hridoycomilla@yahoo.com Developed by i2soft
document.write(unescape("%3Cscript src=%27http://s10.histats.com/js15.js%27 type=%27text/javascript%27%3E%3C/script%3E")); try {Histats.start(1,3445398,4,306,118,60,"00010101"); Histats.track_hits();} catch(err){};